নিউজপলিটিক্সরাজ্য

ভবানীপুর উপ নির্বাচনের জন্য নতুন স্লোগান তুলে প্রচার শুরু করল তৃণমূল।

নিজস্ব প্রতিবেদন: রাজ্যে খুব শীঘ্রই উপনির্বাচন চাইছে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকার। এই আবহের মধ্যে সাতটি বিধানসভা কেন্দ্রে উপনির্বাচন বাকি রয়েছে। মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক রাজ্যের এই উপ নির্বাচন সম্পন্ন করতে সক্রিয় হয়েছে। কিন্তু এই পরিস্থিতিতে কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন এখনো ততটা সক্রিয় নেই।

এই আবহের মধ্যে গত শুক্রবার নির্বাচন কমিশনের দপ্তরে এসেছিলেন তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়। এছাড়াও পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের সাথে গিয়েছিলেন চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য, জাভেদ খান , শশী পাঁজা সুব্রত মুখোপাধ্যায় প্রমুখেরা।তারা সকলেই মুখ্য নির্বাচন আধিকারিককে বলেছেন যে বর্তমানে রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে এসেছে। ‌ তাই এই আবহের মধ্যে সহজেই উপনির্বাচন করানো যেতে পারে।

আরও পড়ুন-“ত্রিপুরা কি আলাদা দেশ?”- বিজেপির বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দিলেন অভিষেক বন্দোপাধ্যায়

এর পরিপ্রেক্ষিতে তৃণমূল বারবার আবেদন জানিয়েছে যে এক সপ্তাহ প্রচারের জন্য সময় দিলেই এই উপনির্বাচন নির্বিঘ্নে সম্পাদন হয়ে গিয়ে যাবে।এই আবহের মধ্যে নির্বাচনী নির্ঘন্ট সম্পন্ন হ‌ওয়ার আগেই ভবানীপুর নির্বাচন কেন্দ্রে তৃণমূলের নেতাকর্মীরা একটি স্লোগান সৃষ্টি করে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রচারের সূত্রপাত করে দিয়েছেন। একটি নতুন স্লোগান তাঁরা রচনা করেছে। একুশের ভোটের আগে তৃণমূলের স্লোগান ছিলো ‘বাংলা নিজের মেয়েকেই চাই’ ।

এই স্লোগানের সৃষ্টিকর্তা ছিলেন ভোট কুশলী প্রশান্ত কিশোর। এবারের স্লোগান তৈরি করেছে তৃণমূলের শাখা সংগঠন জয় হিন্দ বাহিনী। ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় এই স্লোগানটি দিয়ে ব্যাপক প্রচার শুরু করে দিয়েছে তৃণমূল। এছাড়াও ভবানীপুরের জায়গায় জায়গায় ছোট ছোট হোর্ডিং দেওয়া হচ্ছে।

আরও পড়ুন-“ত্রিপুরার পুলিশ মেরুদণ্ডহীন।”- দেবাংশু দের গ্রেপ্তারে ক্ষোভে সোচ্চার হলেন কুণাল ঘোষ

এই ভবানীপুরের মাটিতে ২৮ হাজার ভোটে জয়লাভ করেছিলেন শোভন দেব চট্টোপাধ্যায়। গত ২১ শে মে ভবানীপুর আসনটি থেকে পদত্যাগ করেছেন শোভন দেব চট্টোপাধ্যায়। তাই এই আসনে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় লড়বেন এটা প্রথম থেকেই জানা গিয়েছিল। ভোটের দিনক্ষণ ঘোষণার আগেই তৃণমূল নতুন স্লোগান হাতিয়ার করে রীতিমতো ভোট প্রচারে শামিল হয়েছে।

একুশের ভোটের ফলাফলে যথেষ্ট প্রত্যয়ী হয়ে রয়েছে তৃণমূল। এবারে তাদের নতুন স্লোগান – ‘উন্নয়ন ঘরে ঘরে। ঘরের মেয়ে ভবানীপুরে’

Related Articles

Back to top button