নরেন্দ্র মোদীকে রামনবমীর শুভেচ্ছা জানিয়ে চিঠি দিলেন তৃণমূল সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী

নরেন্দ্র মোদীকে রামনবমীর শুভেচ্ছা জানিয়ে চিঠি দিলেন তৃণমূল সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী

নিজস্ব প্রতিবেদন: একুশের ভোটে যথেষ্ট সরগরম পরিস্থিতি বাংলার মাটিতে। গত বছর ডিসেম্বরে তৃণমূলের সঙ্গে সমস্ত রকম সম্পর্ক ছিন্ন করে , কয়েকদিন আগেই ছেলের পদাঙ্ক অনুসরণ করে বিজেপিতে যোগদান করেছেন শুভেন্দু অধিকারীর পিতা শিশির অধিকারীও। এই দুই হেভিওয়েট তৃণমূল নেতার বিজেপিতে যোগদানের পরেই তৃণমূল সমর্থকদের ক্ষোভ আছড়ে পড়েছে তাদের বিরুদ্ধে।

বিভিন্ন জায়গায় শুভেন্দু এবং শিশির অধিকারীর বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখিয়েছে তৃণমূল কর্মী সমর্থকরা। কিন্তু শুভেন্দু অধিকারীর ভাই তৃণমূল সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী এখনও রয়ে গিয়েছেন তৃণমূলেই। কিন্তু তৃণমূল সাংসদ থাকাকালীন তিনি বারবার প্রধানমন্ত্রীর প্রশংসায় মুখর হচ্ছেন। কয়েকদিন আগেই তিনি করোনার এই আবহে মুখ্যমন্ত্রীর করোনা মোকাবিলার প্রতি কিছুটা অনাস্থা জ্ঞাপন করে চিঠি দিয়েছেন রাজ্যপাল কে।

আরও পড়ুন-দেখুন লকডাউন নিয়ে কি বার্তা দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী?

এবার তৃণমূল সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী রামনবমীর শুভেচ্ছা জানিয়ে চিঠি দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে। এর পাশাপাশি তিনি প্রধানমন্ত্রীকে বেশ কয়েকটি প্রস্তাব দিয়েছেন করোনা মোকাবিলার পরিপ্রেক্ষিতে।একদিকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় অভিযোগ করেছেন যে রাজ্যে রামনবমী উপলক্ষে সন্ত্রাস ছড়ানোর চেষ্টা করছে বিজেপি। তিনি রাজ্যবাসী কে আহ্বান জানিয়েছেন যে বিজেপির প্ররোচনাতে কেউ যেন প্রভাবিত না হয়।

সেখানে দলীয় নেত্রীর সম্পূর্ণ বিপরীত অবস্থান নিয়েছেন দিব্যেন্দু অধিকারী। তিনি প্রধানমন্ত্রীকে গত মঙ্গলবার চিঠিতে লিখেছেন,”রামনবমী উপলক্ষে দেশের সাহসী প্রধানমন্ত্রী কে আমি শুভেচ্ছা জানাচ্ছি। ‌ প্রধানমন্ত্রী দেশের এই বিপজ্জনক পরিস্থিতিতে করোনা ভাইরাস এর বিরুদ্ধে সাহসিকতার সাথে লড়াই করছেন। ‌ একজন দেশবাসী হিসেবে আপনার যোগ্য নেতৃত্ব এবং আপনার করোনা যোদ্ধাদের উপরে আমার খুবই ভরসা রয়েছে।”এর পরেই জল্পনা আরো গাঢ় হয়েছে যে খুব শীঘ্রই কি তৃণমূলের সাথে সম্পর্ক ত্যাগ করতে চলেছেন দিব্যেন্দু অধিকারী?