এবার শুভেন্দু অধিকারীকে সতর্ক করলো নির্বাচন কমিশন

এবার শুভেন্দু অধিকারীকে সতর্ক করলো নির্বাচন কমিশন

নিজস্ব প্রতিবেদন: একুশের ভোট ঘিরে থমথমে পরিবেশ বাংলার রাজনৈতিক পটভূমিতে। প্রথম দফার ভোট শান্তিপূর্ণ হওয়ার পর অনেকেই আশ্বস্ত হয়েছিলেন যে বাকি সাতটি দফার ভোট হয়তো শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন হতে চলেছে, কিন্তু অচিরেই বাংলার জনসাধারণের ভুল ভেঙে হিংসার বাতাবরণ আরো গাঢ় হয়ে উঠেছে বাকি নির্বাচনী দফা গুলিতে।

নন্দীগ্রাম সহ বিভিন্ন প্রান্তে যথেষ্ট হিংসা হানাহানির ঘটনা ঘটেছে। কোচবিহারের শীতলকুচিতে কেন্দ্রীয় বাহিনীর উপর হামলা করতে গিয়ে তাদের গুলিতে প্রাণ গিয়েছে চারজন তৃণমূল সমর্থকের। এই ঘটনায় সারা রাজ্য জুড়ে প্রবল চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে সরাসরি দায় চাপিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক থেকে শুরু করে নির্বাচন কমিশন এবং কেন্দ্রীয় বাহিনীর উপরে। ‌

তিনি অভিযোগ করে বলেছেন যে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের নির্দেশে কাজ করছে নির্বাচন কমিশন এবং কেন্দ্রীয় বাহিনী। ‌ তার এই মন্তব্যকে সম্পূর্ণ নির্বাচনী বিধির বিরোধী বলে ২৪ ঘন্টা মুখ্যমন্ত্রীর জনসভা তথা নির্বাচনী কর্মসূচি বাতিল করে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। এদিকে রাহুল সিনহার সমস্ত রাজনৈতিক কর্মসূচি আগামী ৪৮ ঘন্টার জন্য বাতিল করে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। দিলীপ ঘোষকেও নোটিশ পাঠিয়েছে কমিশন।এবার জানা গিয়েছে নন্দীগ্রামের বিজেপির প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারী কে সতর্ক করেছে নির্বাচন কমিশন।

আরও পড়ুন-“বিজেপি ক্ষমতায় এলে আগামী ৫ বছরে দার্জিলিং এর সমস্ত সমস্যার সমাধান করে দেওয়া হবে”- দার্জিলিং এর জনসভা থেকে বললেন অমিত শাহ

গত ৯ ই এপ্রিল শুভেন্দু অধিকারীকে নোটিশ পাঠায় কমিশন। শুভেন্দু অধিকারী মুখ্যমন্ত্রীর বিষয়ে আপত্তি মূলক মন্তব্য করেছিলেন, তাই তাকে এই নোটিশ ধরিয়েছে নির্বাচন কমিশন। শুভেন্দু অধিকারী নোটিসের উত্তর দিলেও সেই ব্যাখ্যায় সন্তুষ্ট নয় নির্বাচন কমিশন।

তাই শুভেন্দু অধিকারীকে সতর্ক করে নির্বাচন কমিশন বলেছে,”রাজ্যের বুকে মডেল কোড অফ অকন্ডাক্ট যতদিন বজায় থাকছে , ততদিন শুভেন্দু অধিকারী এই ধরণের মন্তব্য করবেন না। নাহলে তাঁর বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেবে কমিশন।”এদিকে আবার নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্তের প্রবল সমালোচনা করে আজ বেলা বারোটা থেকে গান্ধী মূর্তির পাদদেশে অনশনে বসেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।