নিউজকলকাতাটেক নিউজ

এবার কলকাতার নিউ টাউন থেকে ধরা পড়ল ভুয়ো মানবাধিকার সংগঠনের চার প্রতিনিধি।

নিজস্ব প্রতিবেদন: দেবাঞ্জন কান্ডের পর থেকেই ভুয়ো অফিসারদের রমরমায় একের পর এক বাধা দিচ্ছে রাজ্য সরকার। ভুয়ো আইএএস অফিসার দেবাঞ্জন দেবের ঘটনার পরেই বিরোধীদের কাছ থেকে যথেষ্ট চাপ আসতে শুরু করে দিয়েছে রাজ্য সরকারের উপর। যার দরুন রাজ্য সরকার এবার সদা তটস্থ হয়ে রয়েছে। দেবাঞ্জন কাণ্ডের পর এই রাজ্যের মাটি থেকে ধরা হয়েছে ভুয়ো আইপিএস, আইএএস, ভুয়ো সিবিআই, সিআইডি অফিসারদের।

এর মধ্যে বেশ কিছু অপরাধীরা দিনের পর দিন ভুয়ো পরিচয় দিয়ে লোকের সাথে প্রতারণা করে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। তবে শেষরক্ষা হচ্ছে না কারোর‌ই, কারণ অপরাধীরা কখনোই বেশীদিন নিজেকে অন্তরালে রাখতে পারে না।এবার রাজ্যের মাটিতে গ্রেফতার করা হয়েছে ভুয়ো মানবাধিকার সংগঠনের চার প্রতিনিধিকে। জানা গেছে গতকাল বিকালে নিউটাউন থানার পুলিশ রাজারহাট নারকেল বাগান এলাকায় একটি গাড়িকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে যথেষ্ট সন্দেহ প্রকাশ করে।

আরও পড়ুন-বিধ্বংসী আগুন লাগলো হলদিয়া পেট্রোকেমিক্যালসে।

‌ তার কারণ এই গাড়িটির সামনে লাগানো বোর্ডে পরিচয় লেখা ছিল ইন্টারন্যাশনাল হিউম্যান রাইটস কাউন্সিলের চেয়ারম্যান হিসাবে। কিন্তু গাড়ির ভিতরের চার যাত্রী কে দেখে মনে হচ্ছিল না যে তারা মানবাধিকার কমিশনের প্রতিনিধি। যার ফলে সাথে সাথে ওই চার আরোহীকে থানায় নিয়ে যায় পুলিশ । তাদেরকে জেরা করে পুলিশ নিশ্চিত হয় যে তারা, কোন রকম মানবাধিকার সংগঠনের প্রতিনিধি নয়, তারপরেই ওই চারজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

আরও পড়ুন-বন্যা পরিস্থিতি চাক্ষুষ করতে আগামীকাল হাওড়া এবং হুগলি রওনা হচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

ধৃত ভুয়ো মানবাধিকার কর্মীদের মধ্যে তারক মন্ডল এই চক্রের প্রধান বলে অনুমান করা হচ্ছে। তারক মন্ডল এর বাড়ি হল নিউটাউনের আদর্শপল্লী এলাকায়। তারা ওই জায়গায় গাড়ি নিয়ে কার জন্য অপেক্ষা করছিল অথবা তাদের আগামী কর্মসূচি কী ছিল সেই বিষয়ে নিশ্চিন্ত হতে অপরাধীদের ঘণ্টার পর ঘণ্টা জেরা করছেন তদন্তকারী অফিসাররা।

Related Articles

Back to top button