ইতিহাসের পাতায় এই প্রথমবার, সম্প্রচার হলো অমরনাথ ধামের আরতি, রইলো ভিডিও

হিন্দুদের পবিত্র তীর্থস্থান হল অমরনাথ। প্রতি বছরে বহু তীর্যযাত্রী বাবা ধামের উদ্দেশ্যে বি-পদসংকুল পথ পেরিয়ে র‌ওনা দেন পূন্যলাভের উদ্দেশ্যে। কিন্তু এই বছরের চিত্রটা অন্যরকম। এই বছরে করোনা পাল্টেছে দেশের চেনা পরিচিত চিত্রটা। তাই জম্মু ও কাশ্মীর প্রশাসন এই ২০২০ তে অমরনাথের ৩,৮৮০ মিটার উচ্চে অবস্থিত ওই পবিত্র গুহায় যাওয়ার জন্য প্রতিদিন ৫০০ তীর্থযাত্রীকে অনুমতি দিয়েছে।

23 শে জুন অনন্তনাগের পাহেলগাওঁ এবং গেন্ডারবালের বাল্টালের দুটি পথ থেকে যাত্রা শুরু হওয়ার কথা ছিলো কিন্তু করোনার স-ন্ত্রা-স ছড়িয়ে পড়ার কারণে সেটা শুরু করতে যথেষ্ট দেরি হয়।অমরনাথ গুহা একটি পবিত্র হিন্দু ধর্মস্থান এটা জম্মু ও কাশ্মীরে অবস্থিত। এটি একটি শৈব তীর্থ। জম্মু ও কাশ্মীরের রাজধানী শ্রীনগর ১৪১ কিলোমিটার দূরে এই ধর্মস্থান অবস্থিত। এখানে যেতে পহেলগাঁও শহর অতিক্রম করতে হবে।

আরও পড়ুন –ক’রোনার পাশাপাশি চরম বিপদ! ধে’য়ে আসছে পৃথিবীর সবচেয়ে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়

গুহাটি পাহাড় ঘেরা এই পর্বত গুলো সাদা তুষারে আবৃত থাকে বছরের অনেকটা দিন জুড়ে। এই গুহার প্রবেশপথ টিও বরফাবৃত থাকে।গ্রীষ্মকালে খুব অল্প সময়ের জন্য এই দ্বার প্রবেশ করার জন্য উপযোগী হয়। সেই সময়েই অগুনতি তীর্থ যাত্রী অমরনাথের উদ্দ্যেশ্যে যাত্রা করেন। অমরনাথের গুহাতে চুঁইয়ে পড়া জল জমে শিবলি-ঙ্গের আকার নেয়। জুন-জুলাই মাসে শ্রাবণী পূর্ণিমা থেকে শুরু হয় অমরনাথ যাত্রা।

আরও পড়ুন – আগামী 2 দিন ধরে চলবে মু’ষলধারে বৃষ্টি, কয়েকটি জেলায় রেড এ’লার্ট জারি করলো মৌসম ভবন

এই যাত্রা জুলাই-আগস্ট মাসে গুরু পূর্ণিমার সময় শেষ হয়।এবার এখানেই একটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ গৃহীত হলো।প্রথমবার , ভারতের অন্যতম এই পবিত্র এবং শ্রেষ্ঠ তীর্থস্থান অমরনাথ ধামের আরতির ভিডিও সম্প্রচারিত হল ভক্তদের জন্য। গত রবিবার দিন অমরনাথ শ্রাইন বোর্ড, অমরনাথের আরতি ও দর্শনের সরাসরি সম্প্রচারের জন্য বিশেষ ব্যবস্থা করেছিলো সকল ভক্তদের উদ্দেশ্যে। অমরনাথের এই পবিত্র আরতি দেখে খুশীতে ভেসে গিয়েছেন অসংখ্য অগণিত ভক্তবৃন্দ।

এখানে আপনার মতামত জানান