“করোনার ৬৫% ওষুধ বিদেশে পাঠিয়ে দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী”- বললেন মুখ্যমন্ত্রী

“করোনার ৬৫% ওষুধ বিদেশে পাঠিয়ে দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী”- বললেন মুখ্যমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদন: একদিকে রাজ্যের মাটিতে একুশের ভোট ঘিরে দ্বৈরথ বৃদ্ধি পেয়েছে বিজেপি এবং তৃণমূলের। আর এদিকে রাজ্যের মাটিতে করোনার বাড়বাড়ন্ত নিয়েও এই দ্বৈরথের আগুনে ঘি পড়েছে। মুখ্যমন্ত্রী করোনা পরিস্থিতিতে
অভিযোগের তীরে বিদ্ধ করেছেন কেন্দ্রীয় সরকারকে।তিনি বলেছেন, “ভোট উপলক্ষে বহিরাগতরা এসেছে সেন্ট্রাল ফোর্স এসেছে, তাদের জন্য বাড়িঘর থেকে শুরু করে অনেক জায়গা ছেড়ে দিতে হয়েছে।

‌ যার জন্য এই আপৎকালীন পরিস্থিতিতে সেফ হাউস তৈরি করতে পারা যাচ্ছে না। করোনা হলেই যে সকলকে হাসপাতালে ভর্তি হতে হবে তেমন নয়, অনেকেই বাড়িতে আইসোলেশন এ থেকেই ভিডিও কল মারফত চিকিৎসা করাতে পারেন।”ভোটের এই আবহে মুখ্যমন্ত্রী আগেই নির্বাচন কমিশনার কে অনুরোধ করেছিলেন যে শেষ তিন দফার ভোট এক দফাতেই সম্পন্ন করার। কিন্তু নির্বাচন কমিশন তার এই অনুরোধে কান দেয়নি। ‌

আরও পড়ুন-“নোটবন্দীর মতো গৃহবন্দী চাইছি না আমরা”- লকডাউন প্রসঙ্গে জানালেন মুখ্যমন্ত্রী

মুখ্যমন্ত্রী বালুরঘাটের সভা থেকে বলেছেন, “এটা ম্যান মেড ডিজাস্টার নয় , এটা হল মোদী মেড ডিজাস্টার । দেশে করোনার ভ্যাকসিন নেই ওষুধ নেই, আমাদের দেশে তৈরি করা ৬৫% ভ্যাকসিন বিদেশে পাঠিয়ে দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। এখানে বাংলায় ইঞ্জেকশন নেই অক্সিজেন নেই।

একদিকে আমাকে প্রচারপর্ব সামলাতে হচ্ছে আবার অন্যদিকে কোভিড পরিস্থিতির মোকাবিলা করতে হচ্ছে।”বাংলায় নির্বাচনের জনসভা অনেকটাই সংক্ষিপ্ত করে দিয়েছে রাজনৈতিক সংগঠন গুলি। তৃণমূল-বিজেপি ঘোষণা করেছেন যে তারা বড় জনসভা আর করবে না। ‌ পরিবর্তে ছোট ছোট সংক্ষিপ্ত জনসভার ওপর জোর দিয়েছে তারা।