নিউজঅফবিটআবহাওয়া

আগামী ৫ দিন ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস ছিল আবহাওয়া দপ্তর। ৫ জেলায় জারি হল হলুদ সর্তকতা।

নিজস্ব প্রতিবেদন: টানা ২ সপ্তাহ ধরে রাজ্যের মাটিতে ব্যাপক বৃষ্টিপাতের দেখা মিলেছে। টানা বৃষ্টিপাতের প্রভাবে রাজ্যের বেশ কিছু জায়গায় বন্যা পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। রাজ্যের বন্যা পরিস্থিতি ক্রমেই জটিলতর হয়ে উঠছে। একেই বাংলার মাটিতে জারি রয়েছে টানা বৃষ্টিপাত, আবার তার উপর নাগাড়ে জল ছেড়ে যাচ্ছে ডিভিসি।

এর ফলে রাজ্যের বেশ কিছু জায়গায় ভয়াবহ বন্যা পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। এখনো পর্যন্ত খানাকুল এবং ঘাটালের বেশ কিছু এলাকায় বন্যা পরিস্থিতি রয়েছে।শীলাবতী নদীর জল দুকূল ছাপিয়ে ঘাটালের মাটিতে বন্যা পরিস্থিতির সৃষ্টি করেছে। এই আবহের মধ্যে আবার রাজ্যে ব্যাপক বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর।

আরও পড়ুন-এটিএমে যদি নগদ না থাকে তাহলে জরিমানা দিতে হবে ব্যাঙ্ককে। অক্টোবর থেকে চালু হতে চলেছে নতুন নিয়ম

আবহাওয়া দপ্তর পূর্বাভাস দিয়েছে যে আজ ১১ ই আগস্ট থেকে শুরু করে ১৫ ই আগস্ট পর্যন্ত দক্ষিণবঙ্গের বেশ কয়েকটি জেলায় ভারী বৃষ্টিপাতের দেখা মিলতে চলেছে। সবথেকে বেশি বৃষ্টিপাত হবে আজ ১১ ই আগস্ট এবং ১২ ই আগস্ট।আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে আজ কলকাতায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকতে চলেছে ৩৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের কাছাকাছি এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা থাকতে চলেছে প্রায় ২৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসের কাছাকাছি।দক্ষিণবঙ্গে তাপমাত্রা যথেষ্ট বৃদ্ধি পাবে। ‌

আরও পড়ুন-১৮ ই আগস্ট থেকে দুটি টিকার ডোজ নিয়ে বেলুড়মঠে প্রবেশ করতে পারবেন ভক্তরা

ইতিমধ্যেই হাঁসফাঁস গরমে নাজেহাল পরিস্থিতি হয়েছে দক্ষিণবঙ্গ বাসীর। কিন্তু ব্যাপক বৃষ্টিপাতের ফলে উত্তরবঙ্গের মাটিতে ধ্বস এবং বন্যার পরিস্থিতির সম্ভাবনা রয়েছে।আজ সকাল থেকেই দক্ষিণবঙ্গের দার্জিলিং, কালিম্পং, আলিপুরদুয়ার, জলপাইগুড়ি এবং কোচবিহারে ব্যাপক বৃষ্টিপাত হতে চলেছে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর। এই পাঁচ জেলায় হলুদ সর্তকতা জারি হয়েছে।

এছাড়াও দক্ষিণবঙ্গের পশ্চিম বর্ধমান, বীরভূম, মুর্শিদাবাদ, নদিয়ায় হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টির সম্ভাবনা জারি করেছে আবহাওয়া দপ্তর।

Related Articles

Back to top button