নিউজপলিটিক্স

আগামীকাল দুপুরেই প্রার্থী এবং এজেন্ট দের নিয়ে ভার্চুয়াল বৈঠক করবেন মুখ্যমন্ত্রী।

নিজস্ব প্রতিবেদন: তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দিনরাত অক্লান্ত পরিশ্রম করে চলেছেন শুধুমাত্র বাংলার মাটিতে তৃণমূলের অস্তিত্বকে বজায় রাখার জন্য। ভারতের প্রথম মহিলা মুখ্যমন্ত্রী তার কাঁধে তুলে নিয়েছেন তৃণমূলকে জেতানোর দায়িত্বভার। তিনিই একমাত্র তৃণমূলের সবথেকে ভরসাযোগ্য স্টার প্রচারক। ‌ পায়ে প্লাস্টার থাকা অবস্থাতেই বিগত এক মাসেরও বেশি সময় ধরে তিনি রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে জনসভা করছেন, রোড শো করছেন, মিছিলে অংশ নিচ্ছেন।

তার অদম্য জেদ আর কখনোই হার না মানার মানসিক দৃঢ়তা তৃণমূলকে অক্সিজেন যুগিয়ে চলেছে। বিভিন্ন জনসভা থেকে তিনি কড়া ভাষায় আক্রমণ শানাচ্ছেন বিজেপির বিরুদ্ধে। বর্তমানে রাজ্যের বাড়ন্ত করোনা পরিস্থিতিতে যথেষ্ট চিন্তিত মুখ্যমন্ত্রী। তিনি চিঠি লিখে প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করেছেন যে রাজ্যে পর্যাপ্ত ভ্যাকসিন পাঠানোর জন্য। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী দপ্তর তার এই চিঠির উত্তর দেয়নি বলে জানিয়েছেন তিনি।আগামী শনিবার ১ লা মে তৃণমূলের ভার্চুয়াল বৈঠক করার কথা ছিলো।

আরও পড়ুন-করোনা আক্রান্ত মা। একটাই অক্সিজেন সিলিন্ডার জোগাড় করেছিলেন ছেলে। বাজেয়াপ্ত করে নিয়ে গেল পুলিশ। ভাইরাল ভিডিও।

এমনিতেই নির্বাচন কমিশনের নিষেধাজ্ঞা অনুযায়ী কোন জনসমাবেশ বা মিটিং মিছিল করছে না তৃণমূল। তৃণমূল জানিয়েছিল যে এবার থেকে তারা ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে জনসভা এবং মিটিং মিছিল করবে। ভোট গণনার আগের দিন দুপুরে প্রার্থী এবং নির্বাচনী এজেন্টদের নিয়ে বৈঠক করার কথা ছিল মুখ্যমন্ত্রীর। কিন্তু তিনি এই বৈঠকের দিন বদল করে আগামীকাল ৩০ শে এপ্রিল স্থির করেছেন। আগামীকাল শুক্রবার দুপুর তিনটে নাগাদ এই বৈঠক সম্পন্ন হবে বলে জানা গিয়েছে।

‌ এই ভার্চুয়ালি বৈঠকে তৃণমূলের মোট ২৮৮ জন প্রার্থী এবং তাদের এজেন্টদের সাথে ভোট গণনা প্রসঙ্গে বৈঠক করবেন মুখ্যমন্ত্রী। নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে যে গণনা কেন্দ্রের টেবিলের সংখ্যা এক থাকবে কিন্তু ঘরের সংখ্যা বৃদ্ধি করা হয়েছে। এই প্রসঙ্গে প্রার্থী এবং নির্বাচনী এজেন্টের বিভিন্ন নির্দেশিকা দেওয়ার জন্য ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে মুখ্যমন্ত্রী এই বৈঠক করতে চলেছেন। সকলেই তাকিয়ে রয়েছে আগামী ২ রা মে’র ফলাফলের দিকে।

Related Articles

Back to top button