রাজ্য পুলিশের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে বিজেপি। বৈঠক করলেন শুভেন্দু-প্রিয়াঙ্কা

রাজ্য পুলিশের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে বিজেপি। বৈঠক করলেন শুভেন্দু-প্রিয়াঙ্কা

নিজস্ব প্রতিবেদন: কয়েকদিন আগেই জরুরি তলব পেয়ে দিল্লি গিয়েছিলেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। ‌ সেখানে গিয়ে তিনি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সাথে বৈঠক করে রাজ্যের ভোট পরবর্তী হিংসাত্মক পরিস্থিতি নিয়ে বেশ কিছু আলোচনা করেছিলেন। জল্পনা হয়েছিল যে তিনি বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করার আবেদন করেছিলেন ওই বৈঠকে। এরপরেই ফিরে এসে কয়েকদিন আগেই ৫০ জন বিধায়ক সহ বাংলায় হিংসাত্মক পরিস্থিতি এবং আইন শৃঙ্খলার অবনতির বিষয়ে অভিযোগ জানাতে গিয়েছিলেন রাজ্যপালের কাছে।

তাদের অভিযোগ শোনার পরেই রাজ্যপাল‌ও দিল্লি গিয়েছিলেন। সেখানে তিনি বেশ কয়েকজন কেন্দ্রীয় বিজেপি নেতা এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সাথে দেখা করেছেন।দিল্লি গিয়ে শুভেন্দু অধিকারী প্রধানমন্ত্রী এবং অমিত শাহের সাথে বৈঠকে জানিয়েছিলেন যে বাংলায় এখনো পর্যন্ত বহু বিজেপি কর্মী ঘরছাড়া হয়ে রয়েছেন। অনেক ক্ষেত্রেই ঘরে আবার ফিরে আসতে হলে তাদের মোটা টাকা জরিমানা দিয়ে তবেই ঘরে ঢুকতে হচ্ছে।

আরও পড়ুন-“উগ্রবাদীদের নিশ্চিন্ত আস্তানা গড়ে উঠছে এই রাজ্যে।”- মালদার কালিয়াচকের ঘটনায় মন্তব্য করলেন দিলীপ ঘোষ।

আবার অনেক সময় তাদেরকে ঘরে ঢোকার পর আক্রমণ করছে তৃণমূল কর্মী সমর্থকরা। এদিকে আজ আবার শুভেন্দু অধিকারীকে জরুরি তলব করেছে দিল্লির শীর্ষ নেতৃত্ব।গতকাল রাতে শুভেন্দু অধিকারী এবং বিজেপির আইনজীবী তথা বিজেপি নেত্রী প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়াল এর সাথে একটি বৈঠক করেছেন বিজেপির অন্যান্য প্রতিনিধিরা। এই বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে ভোট-পরবর্তী আবহে রাজ্যের বিভিন্ন থানায় বিজেপি কর্মীদের বিরুদ্ধে যে সমস্ত মামলা দায়ের হয়েছে সেই সমস্ত মামলা চালাবে বিজেপি।

আরও পড়ুন-শুভেন্দু অধিকারীকে আবার দিল্লিতে তলব করল বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্ব।

সম্প্রতি এই প্রিয়াঙ্কার করা জনস্বার্থ মামলার পরিপ্রেক্ষিতে কলকাতা হাইকোর্ট তীব্র ভর্ৎসনা করেছে রাজ্য সরকারকে । বিজেপি দাবি করেছে যে বেশির ভাগ মিথ্যা মামলায় জড়িয়ে দেওয়া হয়েছে বিজেপি কর্মীদের। উক্ত বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে যে সমস্ত জেলার পুলিশ সুপার এবং আইসিরা এই মিথ্যা মামলায় জড়িয়ে দেওয়ার সঙ্গে যুক্ত তাদের বিরুদ্ধে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করবে বিজেপি। ইতিমধ্যেই বেশ কিছু পুলিশ কর্তার একটি তালিকা প্রস্তুত করেছে বিজেপি।

আরও পড়ুন-২০২৪ এর লোকসভা ভোটে বিজেপির দখলে ক’টা আসন যাবে তা এখনই বলে দিলেন দেবাংশু

সেই তালিকা অনুযায়ী তাদের বিরুদ্ধেই জনস্বার্থ মামলা দায়ের হতে চলেছে। এই মর্মে প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়াল বলেছেন, “অনেক পুলিশ অফিসার বিজেপি কর্মীদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলায় তাদের কে জেলে ঢুকিয়েছেন। আমাদের কাছে সমস্ত প্রমান রয়েছে। আমরা প্রত্যেকে বিরুদ্ধে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করব।

বিচারপতিরা রাজ্যকে ভর্ৎসনা করে বলেছেন যে, প্রমাণ থাকা সত্ত্বেও প্রথম থেকেই হিংসার ঘটনা অস্বীকার করেছে রাজ্য। এবার ওই পুলিশ অফিসারদের শাস্তির সম্মুখীন হতে হবে।”