নিউজপলিটিক্সরাজ্য

অনুব্রত মন্ডলের গড় বীরভূম আবার ভাঙন বিজেপিতে।

নিজস্ব প্রতিবেদন: একুশের ভোটে রাজ্যে আভাস মিলেছিলো যে এবার তৃণমূলের জমানা শেষ হয়ে বিজেপির শাসন কায়েম হতে চলেছে, সেইমতো নিজেদের রাজনৈতিক কেরিয়ার বজায় রাখার জন্য বেশ কিছু নেতা নেত্রীরা ‘দলে থেকে কাজ করতে পারছি না’ বলে দলে দলে বিজেপিতে যোগদান করেছিলেন। কিন্তু একুশের ভোটে আবার তৃণমূল বাংলায় ক্ষমতায় অধিষ্ঠিত হ‌ওয়ার পর আবার ভোল বদলে ফেলেছেন সেই সমস্ত দলবদলু নেতা নেত্রীরা। আবার তারা বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করছেন।

এছাড়াও বিজেপির বহু কর্মী সমর্থকরাও দলে দলে তৃণমূলে যোগদান করছেন। বেশীরভাগ জায়গাতেই বিজেপির ঘর ভাঙছে হুড়মুড় করে।এবার বিজেপির ভাঙন দেখা দিলো অনুব্রত মন্ডলের গড় নানুরে। বীরভূমের নানুর বিধানসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত সিয়ান তৃণমূল কার্যালয়ে প্রায় ৫০ টি বিজেপি পরিবারের প্রায় ২৫০ জন বিজেপি কর্মী সমর্থকরা দলে দলে তৃণমূলে নাম লেখালেন।

আরও পড়ুন-প্রচারে কন্যাশ্রীকে লেখা হল ‘কন্নাশ্রী’ । যথেষ্ট অস্বস্তির মধ্যে পড়লেন দিলীপ ঘোষ

গতকাল তৃণমূল বিধায়ক বিধানচন্দ্র মাঝি ওই বিজেপি কর্মীদের হাতে তৃণমূলের পতাকা তুলে দিয়েছেন। এছাড়া ওই কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন বোলপুর পঞ্চায়েত সমিতির সহ সভাপতি এবং আরো অনেক নেতৃবৃন্দ।তৃণমূল বিধায়ক বিধানচন্দ্র মাঝি বলেছেন, “এই এলাকায় প্রতিটি মানুষের বাড়িতে আমরা উন্নয়নের জোয়ার ব‌ইয়ে দেবো।

আরও পড়ুন-হঠাৎ দিল্লি গিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সাথে দেখা করলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়

বর্তমানে রাজ্য সরকারের ৭০ টি প্রকল্প চালু রয়েছে। এই প্রকল্প গুলির মাধ্যমে সাধারণ মানুষের উপকার করাই আমাদের লক্ষ্য। ভোটের পূর্বে বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতারা এসে অনেক প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। কিন্তু নির্বাচনে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে তারা দাঁড়াতে পারেননি।”

Related Articles

Back to top button