টেক নিউজদেশনিউজ

উজ্জ্বলা যোজনার দ্বিতীয় পর্বের সূচনা করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

নিজস্ব প্রতিবেদন: সারা দেশজুড়ে ব্যাপক ভাবে মূল্যবৃদ্ধি ঘটেছে পেট্রোপণ্যের। এর ফলে তেল সংস্থা গুলি এলপিজির দাম‌ও বাড়িয়ে দিয়েছে। তবে এর অনেক আগেই সারা দেশে সাধারণ মধ্যবিত্ত এবং নিম্নবিত্তদের ঘরে গ্যাসের সুবিধা তুলে দিতে প্রধানমন্ত্রী চালু করেছিলেন উজ্বলা যোজনার। এই যোজনার অন্তর্গত আজ বহু ভারতবাসী বিনামূল্যে রান্নার গ্যাসের সুবিধা পাচ্ছেন।

করোনা কালেও উজ্বলা যোজনায় গ্যাস দেওয়া হয়েছে। আজ এই উজ্বলা যোজনার দ্বিতীয় পর্বের সূচনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনি ভিডিও বার্তায় দেশবাসীর উদ্দেশ্যে বলেছেন,”২০১৪ সালে দেশবাসী আমাকে তাঁদের সেবা করার অবসর দিয়েছিলেন। তখন‌ই আমি ভেবেছিলাম দেশের মধ্যে সমস্ত সমস্যার সমাধান গুলি আমাদের খুব শীঘ্রই করতে হবে।

আরও পড়ুন-স্বাধীনতা দিবসের আগে কাশ্মীরে জঙ্গি হামলায় জখম এক ভারতীয় সেনা জওয়ান

আমাদের মা-বোনেরা তখনই রান্নাঘর থেকে বেরিয়ে রাষ্ট্র গঠনে উল্লেখযোগ্য অংশগ্রহণ করতে পারবে যখন তাদের রান্না ঘর এবং ঘরের বিভিন্ন সমস্যা গুলি দূর হবে। তাই এই সমস্ত সমস্যা গুলির সমাধান করার জন্য গত ৬ – ৭ বছরে মিশনের মাধ্যমে এই সমস্ত বিষয়গুলির উপরে কাজ করা হয়েছে। স্বচ্ছ ভারত মিশনে সারা দেশে কোটি কোটি শৌচালয় বানানো হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনায় ২ কোটিরও বেশি গরিব মানুষকে ঘর দেওয়া হয়েছে।

এই ঘরগুলির অধিকাংশ মালিকানা রয়েছে মা-বোনেদের নামে। হাজার হাজার কিলোমিটার গ্রামীণ সড়ক বানানো হয়েছে। সরকারি যোজনায় প্রায় তিন কোটি পরিবারকে বৈদ্যুতিক সংযোগ দেওয়া হয়েছে। আয়ুষ্মান ভারত যোজনায় ৫০ কোটিরও বেশি অধিক মানুষকে ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত ফ্রি চিকিৎসার ব্যবস্থা দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন-দিল্লিতে অলিম্পিকে পদকজয়ীদের রাজকীয় সম্বর্ধনা দিলো কেন্দ্রীয় সরকার।

মাতৃ বন্দনা যোজনায় গর্ভাবস্থার সময় টিকাকরন এবং পৌষ্টিক আহারের জন্য হাজার টাকা ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে জমা করা হচ্ছে মহিলাদের। জলজীবন মিশনে গ্রামীণ পরিবারের মা বোনেদের কাছে নল বাহিত পানীয় জল পৌঁছে দেওয়া হয়েছে। উজ্বলা যোজনায় ৮ কোটির‌ও বেশী মা বোনেদের ফ্রি গ্যাস কানেকশন দেওয়া হয়েছে। করোনা কালে কোটি কোটি গরিব পরিবারকে বিনামূল্যে গ্যাস দেওয়া হয়েছে।”

Related Articles

Back to top button