নিউজপলিটিক্সরাজ্য

“সংসদ চালাতে চাইছেন না প্রধানমন্ত্রী, পালিয়ে বেড়াচ্ছেন”- রীতিমতো ক্ষোভ প্রকাশ করলেন তৃণমূল নেতা সৌগত রায়

নিজস্ব প্রতিবেদন: সংসদে বেশ কিছু ইস্যু সম্পর্কে আলোচনা করতে চাইছে না কেন্দ্রীয় সরকার। এই অভিযোগে অনেক আগে থেকেই সরব হয়েছে বিরোধী দলগুলি। কংগ্রেস , তৃণমূল সহ বিভিন্ন বিজেপি বিরোধী দলগুলি প্রথম থেকেই পেগাসাস, পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি সহ বিভিন্ন ইস্যুতে সংসদে সুর চড়িয়ে আসছে। সংসদে কেন্দ্রীয় সরকার সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে সেই সমস্ত ইস্যুতে আলোচনা করছে না বলে দাবি করছে বিরোধী দলগুলি।

এবার সংসদে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলেছে তৃণমূল কংগ্রেস।গতকাল বৃহস্পতিবার এক সম্মেলনে তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায় যথেষ্ট সোচ্চার হয়েছেন কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে। তিনি বলেছেন,”কেন্দ্রীয় সরকার সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে সংসদ চালাতে চাইছে না। স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী সংসদের অধিবেশনে অনুপস্থিত থাকেন।

আরও পড়ুন-ত্রিপুরায় দেবাংশুর গাড়িচালক সহ একাধিক তৃণমূল নেতা কর্মীদের গ্রেফতার করলো ত্রিপুরা পুলিশ।

বাদল অধিবেশনে হুট করে ওবিসি বিল‌ পাশ হল, কিন্তু সেদিন‌ও সংসদে অনুপস্থিত অমিত শাহ আর নরেন্দ্র মোদী। এটা কি সত্যিই গনতন্ত্র চলছে? বিতর্কের মধ্যে এই বিলগুলো পাশ করানো হচ্ছে। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং তাঁর ৫ বছরের প্রধানমন্ত্রীত্বের সময়ে ২১ টি প্রশ্নের নিজে উত্তর দিয়েছিলেন, কিন্তু বর্তমান প্রধানমন্ত্রী সংসদ থেকে শুধুমাত্র পালিয়ে বেড়াচ্ছেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ‌ও পালিয়ে বেড়াচ্ছেন।

আরও পড়ুন-ত্রিপুরার পাশাপাশি এবার যোগীরাজ্যে ‘খেলা হবে দিবস’ পালন করবে তৃণমূল

প্রধানমন্ত্রীর হাতে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ দপ্তর রয়েছে কিন্তু বিগত পাঁচ বছরে তিনি একটাও প্রশ্নের উত্তর নিজে দেন নি। আমরা পেগাসাস ইস্যুতে আলোচনার জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের থেকে সময় চেয়েছিলাম, কিন্তু এই গুরুত্বপূর্ণ ইস্যুতে আলোচনার জন্য মাত্র ১০ মিনিট সময় দেওয়া হয়েছে। গনতন্ত্রকে ভুলুন্ঠিত করা হচ্ছে। কোনোরকম বিল নিয়ে আলোচনাই করতে চাইছে না কেন্দ্রীয় সরকার।”

Related Articles

Back to top button