নিউজঅফবিট

মাত্র ১৫,০০০ টাকা পুঁজি নিয়ে খুলে ফেলুন নিজের কারখানা! প্রতিদিন আয় হবে ১,০০০ টাকা! জেনে নিন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- এই মুহূর্তে দেশের যা পরিস্থিতি তাতে সুস্থ স্বাভাবিক জীবন কাটিয়ে ওঠা দুঃসাধ্য ব্যাপার। অর্থাৎ দেশের মধ্যে বেকারত্বের সংখ্যা যে হারে বেড়ে চলেছে সেই অবস্থায় দাঁড়িয়ে নিজেকে চাকরি নিয়ে জীবনে সুপ্রতিষ্ঠিত করার ভাবনা মোটেও সহজ ব্যাপার নয়। তাহলে উপায় কি? কিছু একটা করে তো জীবন অতিবাহিত করতে হবে? সারা জীবন তো আর বেকার বসে থাকা যায়না। তাই অনেকে ছুটে যান ব্যবসার দিকে।

কিন্তু ব্যবসার কথা মাথায় এলে আমাদের মোটা অংকের টাকা বা পুজির কথা মাথায় আসে আমাদের। কোথায় মিলবে এত টাকা? এর পাশাপাশি আপনাদের জানিয়ে রাখি এমন বেশ কিছু ব্যবসা আছে যেখানে আপনি শুধুমাত্র খুব কম খরচে আপনি আপনার ব্যবসা শুরু করতে পারেন। তার পাশাপাশি পরবর্তী সময়ে ব্যবসা বড় করতে পারেন । আজকে আপনাদের সেই ব্যবসার কথাই বলতে চলেছি।

বর্তমান প্রজন্মের অনেক তরুণ তরুণীরা চাকরি ছেড়ে ব্যবসার পথ খুঁজে নিচ্ছেন নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করার জন্য । কিন্তু যাদের ক্ষেত্রে আর্থিক স্বচ্ছলতা আছে তাদের অতটা ভাবতে হয় না ।যাদের আর্থিক স্বচ্ছলতা নেই তাদেরকে রীতিমত একটা ব্যবসা চালু করতে গেলে অনেক বার ভাবতে হয়। কোথাও যদি ব্যবসাটা লোকসান হয়ে যায় বা লাভ করতে না পারে সে ক্ষেত্রে পথে বসার উপক্রম হবে। কিন্তু এমন কিছু ব্যবসা রয়েছে যা আপনি খুব কম খরচে শুরু করতে পারেন। যেমন মোমবাতির ব্যবসা।

বাজারে মোমবাতি চাহিদা প্রচন্ড। যে কোন অনুষ্ঠান বাড়ি হোক বা যে কোন ধর্মীয় উৎসব হোক সব ক্ষেত্রে মোমবাতি দরকার লাগে। মন্দির মসজিদ চার্জ সব জায়গাতে মোমবাতি দরকার লাগে। কাজেই মোমবাতি চাহিদা বর্তমান বাজারে প্রচুর ।কিন্তু এই মোমবাতি তৈরি করতে গেলে যে মেশিনারিজের এর দরকার পড়ে তার মূল্য প্রচুর অর্থাৎ মোমবাতি তৈরি হয় যে মেশিন দিয়ে বা যন্ত্র দিয়ে তার বর্তমান মূল্য ৭৫ থেকে ৮০ হাজার টাকা।

তবে এত বিপুল পরিমাণ অর্থ বিনিয়োগ না করে প্রাথমিকভাবে আপনি 15000 থেকে কুড়ি হাজার টাকা বিনিয়োগ করে কিন্তু এই ব্যবসা শুরু করতে পারেন। সম্প্রতি কলকাতার কাছাকাছি সোনারপুর স্টেশন লাগোয়া একটি কারখানার কথা জানা গেছে। যার মাধ্যমে আমরা জানতে পেরেছি যে এই কারখানা থেকে আপনাকে সমস্ত ধরনের ট্রেনিং প্রদান করা হবে

অর্থাৎ আপনি কোথা থেকে মেটিরিয়ালস কিনবেন কিভাবে তৈরি করবেন এবং কোথায় বিক্রি করবেন সমস্ত কিছু তথ্য দিয়ে দেওয়া হবে এই কারখানা তরফ থেকে। আমরা প্রতিবেদনের শেষে এই কারখানার ঠিকানা দিয়ে দেবো। সেই সংস্থার তরফ থেকে এমনটা জানা যাচ্ছে যে মাত্র 15 হাজার টাকা বিনিয়োগ করে এই ব্যবসা শুরু করতে পারেন পাশাপাশি প্রতি মাসে 25 থেকে 30 হাজার টাকা উপার্জন করতে পারেন কোনরকম ঝুঁকি ছাড়া।

ঠিকানা:– সোনারপুর সুপার আর্ট।
সোনারপুর স্টেশন থেকে পায়ে হেঁটে মাত্র পাঁচ মিনিটের রাস্তা।
যোগাযোগ নাম্বার:- 9002886369

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button