সপ্তম বর্ষপূর্তি উপলক্ষ্যে উন্নয়নের খতিয়ান দিলেন মোদী-শাহরা। পাল্টা ব্যর্থতার ভরপুর উদাহরণ বিরোধীদের।

সপ্তম বর্ষপূর্তি উপলক্ষ্যে উন্নয়নের খতিয়ান দিলেন মোদী-শাহরা। পাল্টা ব্যর্থতার ভরপুর উদাহরণ বিরোধীদের।

নিজস্ব প্রতিবেদন: সারা দেশজুড়ে চলছে করোনার ভয়াবহ আতঙ্ক। এই পরিস্থিতিতে কেন্দ্রে সপ্তম বর্ষপূরণ করেছে বিজেপি সরকার। তবে বর্ষপূর্তিতে কোনরকম উৎসব পালন করেনি বিজেপি। বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বরা নির্দেশ দিয়েছেন যে এই আবহে প্রতিটি মানুষের পাশে দাঁড়াতে হবে। এই বিশেষ দিনটিকে বিজেপি নামকরণ করেছে ‘সেবা দিবস’ হিসাবে। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, “ভারত বর্তমানে কোন দেশকে অনুকরণ করে না কারো কাছে মাথা নত করে না। বর্তমানে ভারত তার অস্তিত্বকে সকলের মাঝে তুলে ধরেছে। আমাদের দেশ সঠিক পথে এগিয়ে চলেছে।

“স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ টুইট করে বলেছেন, “আমরা দেশের উন্নয়নের লক্ষ্যে কাজ করছি। দেশের মানুষের কাছে আমরা দায়বদ্ধ।”মোদী-শাহরা সপ্তম বর্ষপূর্তি উপলক্ষে উন্নয়নের খতিয়ান তুলে ধরেছেন। কিন্তু পাল্টা বিরোধীরা ৭ দফা ব্যর্থতার খতিয়ান তুলে ধরে বিদ্ধ করেছে কেন্দ্রীয় বিজেপি সরকারকে।

আরও পড়ুন-টীকা রফতানি বন্ধ করলো ভারত। বিপাকে ১০০ টি দেশ। চিন্তিত হু।

কংগ্রেস প্রবল সমালোচনা করে জানিয়েছে, বর্তমানে সীমান্তে উত্তেজনাপূর্ণ পরিস্থিতি, রাষ্ট্রের করোনা আবহে বেহাল দশা এবং আরো অন্যন্য বেহাল পরিস্থিতি হল মোদী সরকারের ৭ বছরের উন্নয়ন।কংগ্রেস নেতা রনদীপ সিং সূর্য‌ওয়ালা বলেছেন , “গত ৭৩ বছরে বর্তমানে ভারতে সবথেকে দূর্দশার পরিস্থিতি বিরাজ করছে।’এছাড়াও শিবসেনা বলেছে, ‘দেশের দরিদ্র মানুষ তা আরো দরিদ্র হয়ে পড়ছে।

আরও পড়ুন-আবার বাংলার মাটিতে বজ্রবিদ্যুৎসহ বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা। ব‌ইবে ঝোড়ো হাওয়া।

কেন্দ্রীয় সরকারের এটি মুহূর্তে আত্মসমালোচনা করা প্রয়োজন।’স্বভাব সিদ্ধ ভঙ্গিতে রাহুল গান্ধী টুইটারে প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে আক্রমণ শানিয়ে বলেছেন , “ব্রাজিলের রাষ্ট্রপতি বলসনারো, আমেরিকার প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্পের মতোই নরেন্দ্র মোদী।’প্রাক্তন বিজেপি মন্ত্রী যশবন্ত সিনহা বলেছেন, ‘মোদী সরকারের উন্নয়ন হলো মুম্বাইয়ে পেট্রোলের লিটার প্রতি দাম ১০০ টাকা।’এছাড়াও বিভিন্ন বিরোধী দলের নেতারা একযোগে আক্রমণ করেছেন কেন্দ্রীয় বিজেপি সরকারকে। যার ফলে কেন্দ্রের সাত বছরের উন্নয়নের খতিয়ান অনেকটাই মলিন হয়ে গিয়েছে।