নিউজপলিটিক্স

বীরভূমে বিজেপি প্রার্থী কে বাঁশ নিয়ে তাড়া করল দুষ্কৃতীরা। করা হলো গাড়ি ভাঙচুর। অভিযোগের তির তৃণমূলের দিকে।

নিজস্ব প্রতিবেদন: গতকাল রাজ্যে ৩৫ টি আসনে ভোটগ্রহণ হয়েছে। বীরভূমের ১১ টি আসনে, কলকাতার ৭ টি আসনে, মুর্শিদাবাদের ১১ টি আসনে, এবং মালদার ৬ টি আসনে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। গতকাল শেষ দফায় সকাল থেকেই বিভিন্ন জেলায় জেলায় টুকরো টুকরো অশান্তির ছবি সামনে এসেছে। কলকাতার মহাজাতি সদনের সামনে বোমাবাজির ঘটনা ঘটেছে, ভোটের আগের রাতে বীরভূমে দুটি জায়গায় উদ্ধার হয়েছে তাজা বোমা।

এছাড়াও এন্টালিতে বিজেপি অভিযোগ করেছে যে তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতী ইভিএম মেশিনের পাশে দাঁড়িয়ে মানুষকে তৃণমূলে ভোট দিতে জোর করছে। জায়গায় জায়গায় বিক্ষিপ্ত অশান্তির খবর মিলেছে। এছাড়াও আলিনগরে বেশ কয়েকটি তীর উদ্ধার করেছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। বিজেপি অভিযোগ করেছে যে এই তীর বিজেপির দিকে ছোঁড়ার জন্য জড়ো করছিলো। কিন্তু তৃণমূল এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে।এদিকে মানিকতলায় বিজেপি প্রার্থী কল্যাণ চৌবে কে ঘিরে বিক্ষোভ দেখিয়েছে তৃণমূল কর্মী সমর্থকরা।

আরও পড়ুন-এবারে প্রায় ১৬৪ টি আসন পেতে পারে তৃণমূল। বলছে বুথ ফেরত সমীক্ষা

রাজ্যের জায়গায় জায়গায় বিক্ষিপ্ত ঝামেলা অশান্তি খবর পাওয়া গিয়েছে । বীরভূমের বোলপুর কেন্দ্রের ইলামবাজারে বিজেপি প্রার্থী কে বাঁশ নিয়ে তাড়া করে তার গাড়ির কাচ ভাঙচুর করার অভিযোগ উঠেছে তৃণমূল কর্মীদের বিরুদ্ধে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়েছে। ধরমপুরের বিজেপি প্রার্থী অনির্বান গঙ্গোপাধ্যায় কে ঘিরে প্রবল বিক্ষোভ দেখিয়েছে তৃণমূল কর্মী সমর্থকরা। তাঁকে গো ব্যাক স্লোগান দেওয়া হয়েছে।

অনির্বান গঙ্গোপাধ্যায়ের সাথে যে গাড়িটি ছিলো সেটি পুলিশের সামনেই ভাঙচুর করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে রণক্ষেত্র হয়ে উঠেছে ধরমপুর। একে অপরের দিকে রীতিমতো ইঁট পাটকেল ছুঁড়তে থাকে তৃণমূল এবং বিজেপির কর্মী সমর্থকরা। ঘটনাস্থলে বিশাল পুলিশ বাহিনী এবং কেন্দ্রীয় বাহিনী গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করেছে। লাঠি, বাঁশ নিয়ে বিজেপি প্রার্থীর গাড়ি ভাঙচুর করা হয়েছে। এই ঘটনায় কয়েকজন গুরুতর আহত হয়েছেন।

Related Articles

Back to top button