বীজপুরে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করলেন প্রায় কয়েকশো কর্মী সমর্থক।

বীজপুরে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করলেন প্রায় কয়েকশো কর্মী সমর্থক।

নিজস্ব প্রতিবেদন: ক্রমাগত‌ই ভাঙ্গন তীব্র হচ্ছে বিজেপির অন্দরে। বিজেপি ছেড়ে দলে দলে তৃণমূলে যোগদান করছেন বিজেপি নেতা কর্মীরা। মুকুল রায় বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যাওয়ার সময়েই বলেছিলেন যে বহু বিজেপি নেতা নাকি তাঁর সাথে ফোনে যোগাযোগ করছেন‌ ।

তার পরেই বহু বিজেপি নেতা কর্মীরা দলে দলে নাম লেখাচ্ছেন তৃণমূলে।এই আবহে আবার ভাঙন দেখা দিলো বীজপুরের বিজেপি সংগঠনে। আজ পিচকুড়ির তৃণমূল বিধায়ক সুবোধ অধিকারী এবং নৈহাটির বিধায়ক পার্থ ভৌমিকের হাত থেকে তৃণমূলের পতাকা নিয়ে বিজেপির প্রায় কয়েকশো কর্মী সমর্থকরা যোগদান করলেন তৃণমূলে।

আরও পড়ুন-করোনায় তৃতীয় ঢেউয়ের মোকাবিলার পদক্ষেপ হিসাবে শিশুদের বেড সংখ্যা বাড়ালো রাজ্য সরকার।

আজ হালিশহরের মঙ্গলদীপ ভবনে একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল এই যোগদান উপলক্ষে। এই অনুষ্ঠানে হাজির হয়েছিলেন বিজেপির হালিশহর শাখার ৩ জন মন্ডল সভাপতি এবং ৪২ জন নেতা। এছাড়াও প্রায় কয়েকশো কর্মীরাও যোগদান করেছেন।

আরও পড়ুন-“বিজেপি করার প্রায়শ্চিত্ত করলাম।”- মাথা ন্যাড়া হয়ে বিজেপি থেকে তৃণমূলে যোগদান ৫০০ জন কর্মীর।

তৃণমূলে যোগদান করে বিক্ষুব্ধ বিজেপি নেতা কর্মীরা অভিযোগ করেছেন যে, বিধানসভা ভোটের রেজাল্ট বেরোনোর পরেই রাজ্য শীর্ষ নেতারা আর অধঃস্তন নেতাদের সাথে কোনোরকম যোগাযোগ করছেন না। সংগঠন আগামী দিনে কিভাবে চালিত হবে সেই বিষয়ে কেউ কোনো সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন না। তাই তাঁরা সকলে মিলে স্থির করেছেন যে তৃণমূলে যোগ দেবেন। ‌ তৃণমূলে যোগ দেওয়ার জন্য তাঁদের কোনো চাপ দেওয়া হয়নি বলে জানিয়েছেন তাঁরা।