নিউজ

“হাসপাতালে শিশুদের জন্য ২০% কোভিড বেড সংরক্ষণ করতে হবে”- নির্দেশ দিল কেন্দ্রীয় সরকার।

নিজস্ব প্রতিবেদন: সারা দেশজুড়ে করোনার ভয়াবহ সন্ত্রাসে ওষ্ঠাগত মানুষের জীবন। এই পরিস্থিতিতে এখনো পর্যন্ত সারা দেশবাসীর অর্ধেককেও ভ্যাকসিন দেওয়া সম্ভব হয়ে ওঠেনি। এদিকে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান ট্রেডরস আধানোম ঘেব্রিয়েসাস বলেছেন যে এই মূহুর্তে পৃথিবী কোভিডের তৃতীয় ঢেউয়ের প্রাথমিক পর্যায়ে অবস্থান করছে। অর্থাৎ আগামী সেপ্টেম্বর মাসেই করোনার তৃতীয় ঢেউ চলে আসতে পারে।

আর প্রথম থেকেই জল্পনা উঠেছে যে এই তৃতীয় ঢেউয়ে শিশুরাও আক্রান্ত হতে পারেন। কিন্তু হু এর বিজ্ঞানী ডাঃ সৌম্যা স্বামীনাথন জানিয়েছেন যে শিশুরা যে আক্রান্ত হতে পারে সেই বিষয়ে এখনও বৈজ্ঞানিক প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তবে দেশের বেশ কিছু জায়গায় শিশুদের আক্রান্ত হ‌ওয়ার খবর পাওয়া গিয়েছে। এই পরিস্থিতিতে একটি নির্দেশিকা জারি করেছে কেন্দ্রীয় সরকার।

আরও পড়ুন –খড়দহ তে শুটআউটে নিহত তৃণমূল কর্মী। তুঙ্গে উঠলো টিএমসি বিজেপির দ্বৈরথ।

এবার সারা দেশে রাজ্যগুলিকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে যে করোনার তৃতীয় ঢেউয়ের আগমনের আশঙ্কায় রাজ্যগুলির হাসপাতালে শিশুদের জন্য অন্ততঃ ২০% বেড সংরক্ষিত রাখতে হবে। এছাড়া কেন্দ্রীয় সরকার সমস্ত রাজ্যগুলির কাছে করোনার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ ভাবে লড়াই করার আবেদন জানিয়েছেন। কেন্দ্র শাসিত অঞ্চলগুলিকেও আবেদন জানানো হয়েছে।

এছাড়াও রাজ্য গুলিকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে যে করোনা মোকাবিলায় কেন্দ্রীয় সরকার যে ২৩ হাজার কোটি টাকার আর্থিক প্যাকেজের ঘোষণা করেছিলো, সেই প্যাকেজ আগামী এক বছরের মধ্যেই কাজে লাগাতে হবে। এছাড়া রাজ্যগুলি করোনা পরিস্থিতি কে কিভাবে নিয়ন্ত্রণ করছে সেই বিষয়ে পূর্ণাঙ্গ রিপোর্ট কেন্দ্রকে দিতে হবে।

Related Articles

Back to top button