নিউজ

“ভালো লোকগুলো মরছে, আর এই আপদটা মরছে না কেন?”- যোগী আদিত্যনাথ কে কটাক্ষ করলেন শ্রীলেখা মিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: আজ রাজ্যের ৩৫ টি আসনে সম্পন্ন হচ্ছে শেষ দফা অর্থাৎ অষ্টম দফার ভোটগ্রহণ পর্ব। এই ভোটগ্রহণকে ঘিরে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে টুকরো-টুকরো অশান্তির ঘটনা উঠে এসেছে। এই আট দফা নির্বাচনকে ঘিরে সারাটা মাস ধরে যথেষ্ট উত্তপ্ত হয়ে রয়েছে বাংলা। এবারে যে কোনো মূল্যে তৃণমূলের হাত থেকে বাংলার শাসনভার ছিনিয়ে আনতে রণক্ষেত্রে নেমে পড়েছে বিজেপি।

রাজ্যের মহিলা মুখ্যমন্ত্রী কে গদিচ্যুত করার জন্য বারবার বাংলায় ছুটে এসেছেন বিজেপির তাবড় তাবড় নেতারা। এবারে বিজেপির অন্যতম স্টার প্রচারক এর ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়েছেন যোগী আদিত্যনাথ। তিনি বারবার জনসভা করতে এসে পশ্চিমবঙ্গের সাথে উত্তরপ্রদেশের তুলনা টেনেছেন। ‌তিনি বলেছেন উত্তর প্রদেশের নারীরা খুবই সুরক্ষিত। কিন্তু বিদ্বজ্জনেরা বলেছেন উত্তর প্রদেশের নারীরা সুরক্ষিত থাকলে বলরামপুর, হাথরাসে মতো ঘটনা উত্তরপ্রদেশের মাটিতে কি করে ঘটে ? এছাড়াও বেশ কয়েকবার উত্তরপ্রদেশের বুকে দলিত ছেলেমেয়েদের পিটিয়ে মারার ঘটনা ঘটেছে।

বাংলার মাটিতে ভয়াবহ সন্ত্রাস চালাচ্ছে করোনা ভাইরাস। এই ভাইরাস প্রতিদিন প্রাণ নিচ্ছে অসংখ্য মানুষের। ‌ নির্বাচনের শেষ মুহূর্তে এসে নির্বাচন কমিশন জনসভা মিটিং মিছিলের উপর নিষেধাজ্ঞা চাপিয়ে দিয়েছে। কিন্তু অনেকেই বলছেন এই নিষেধাজ্ঞা প্রথম থেকেই বলবৎ করা হলে তাহলে এত বিপুল সংখ্যায় মানুষের মধ্যে ভাইরাসের সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়তে পারতো না। সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রেন্ডিং একটি লেখা শেয়ার হয়ে চলেছে যেখানে নেটিজেনরা লিখেছেন, “ডাক্তার এবং নার্সদের জেতা ম্যাচ কে হারিয়ে দিলেন রাজনীতিবিদরা।”

আরও পড়ুন-আগামীকাল দুপুরেই প্রার্থী এবং এজেন্ট দের নিয়ে ভার্চুয়াল বৈঠক করবেন মুখ্যমন্ত্রী।

এই লেখাটিতে কিছুটা সত্যতা অবশ্যই লুকিয়ে রয়েছে। আস্তে আস্তে যেখানে স্বাভাবিক হয়ে উঠছিল পরিস্থিতি, সংক্রমণে অনেকটাই রাশ টানছিলেন চিকিৎসকরা, সেখানেই বাংলার ভোটের আবহে দিনের পর দিন রাজনীতিবিদরা জনসভার পর জনসভা এবং ব্যাপক ভিড় নিয়ে রোড শো করেছেন। এর ফলে সাধারণ মানুষের মধ্যে ব্যাপক আকারে ছড়িয়ে পড়েছে করোনা। উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ বেশ কয়েকবার বাংলার মাটিতে জনসভা করে গিয়েছেন।

টলিউডের বামপন্থী অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্র চাঁচাছোলা ভাষায় আক্রমণ করেছেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ কে। ‌ তিনি ফেসবুকে বলেছেন, “এই লোকটাকে বাংলায় ঢুকতে দেওয়া অবিলম্বে বন্ধ করা হোক। ভালো লোক গুলো মরে যাচ্ছে কিন্তু এই আপদটা মরছে না কেন?” এইভাবে কড়া ভাষায় অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্র আক্রমণ করেছেন যোগী আদিত্যনাথ কে।

Related Articles

Back to top button