নিউজপলিটিক্সরাজ্য

কেন্দ্রীয় মন্ত্রীত্ব যাওয়ার কারণ জানিয়ে দিলীপ ঘোষকে নিয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন বাবুল সুপ্রিয়

নিজস্ব প্রতিবেদন: প্রথম থেকেই প্রাক্তন কেন্দ্রীয় বিজেপি মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয় সাথে রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষের একটা ঠান্ডা লড়াই জারি রয়েছে সেই বিষয়টি আগেই প্রকাশিত হয়েছে। কয়েকদিন আগে পর্যন্তই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তো চলে যাওয়ার পরে বাবুল সুপ্রিয় বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের বিরুদ্ধে যথেষ্ট ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী চলে যাওয়ার পরেই ব্যথিত চিত্তে বাবুল সুপ্রিয় বলেছিলেন যে তাঁকে মন্ত্রীপদ ছাড়তে বাধ্য করা হয়েছে। সেই সাথে কয়েকদিন আগেই তিনি ফেসবুকে ঘোষণা করেছেন যে বিজেপির সাহচর্য তিনি ত্যাগ করবেন অর্থাৎ তিনি সাংসদ পদ থেকে ইস্তফা দেবেন।

এই বিষয়টিকে কেন্দ্র করে রাজ্য রাজনীতিতে যথেষ্ট চাঞ্চল্যের সূত্রপাত হয়েছিল। অবশেষে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ এবং বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডার অনুরোধে সাংসদ পদে থাকতে রাজী হন বাবুল সুপ্রিয়। তবে ফেসবুক পোস্টেই রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষের সাথে তার ঠান্ডা লড়াইয়ের বেশ কিছুটা আবহ প্রকাশ করেছিলেন বাবুল সুপ্রিয়।কেন্দ্রীয় মন্ত্রীত্ব যাওয়ার কারণ হিসেবে বাবুল সুপ্রিয় সরাসরি দিলীপ ঘোষের উপরেই দায় চাপিয়ে দিয়েছেন।

আরও পড়ুন-“অন্য দলে নাম লেখাচ্ছি না।”- তৃণমূলের বিরুদ্ধে বিস্তর ক্ষোভ প্রকাশ করলেন বাবুল সুপ্রিয়

তিনি বলেছেন যে, “আমি আগেই রগড়ে দেওয়া মন্তব্যকে সমর্থন জানাইনি। উনারা বলেছিলেন জায়গায় জায়গায় শীতলকুচি হবে, সেই মন্তব্যকেও সমর্থন করিনি। এই ধরণের মন্তব্য দলের যথেষ্ট ক্ষতিসাধন করেছে। আর আমি এই ধরনের উগ্র মন্তব্যের বিরোধিতা করেছিলাম বলেই আমার কেন্দ্রীয় মন্ত্রীত্ব কেড়ে নেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন-বাংলায় আলাদা ভ্যাকসিন নীতি চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছে আবেদন দিলীপ ঘোষেদের।

তবে আমি আগেই বলেছি, আবার বলছি যে আমি সাংসদ পদে থাকবো এবং বিজেপির সাথেই থাকবো। আমি দল পাল্টাবো না। সারাজীবন বিজেপিকেই সমর্থন করবো।”

Related Articles

Back to top button