ইয়াস বিপর্যয় কাটতেই দীঘায় নেমে তলিয়ে গেলেন ২ যুবক। উদ্ধার দেহ।

ইয়াস বিপর্যয় কাটতেই দীঘায় নেমে তলিয়ে গেলেন ২ যুবক। উদ্ধার দেহ।

নিজস্ব প্রতিবেদন: ঘূর্ণিঝড় ইয়াস আছড়ে পড়েছিলো দীঘা, শঙ্করপুর উপকূলে। উপকূল অঞ্চলে যথেষ্ট তাণ্ডব চালিয়েছে এই ঘূর্ণিঝড়। ইয়াসের দাপটে লন্ডভন্ড হয়ে গিয়েছে বাঙালির সাধের দীঘা উপকূল। ইয়াসের বিপর্যয় কাটতে না কাটতেই কি খাওয়া উপকূলে হাজির হয়েছিলেন হাওড়ার জগদীশপুরের ৪ বন্ধু। সমুদ্রে স্নান করতে নেমে তলিয়ে গেলেন তাদের মধ্যে ২ জন।

জানা গিয়েছে গত মঙ্গলবার এই ঘটনাটি ঘটেছে দীঘার সমুদ্র সৈকতে। সমুদ্রে নেমে ছিলেন ওই চার বন্ধু। এমনিতেই ইয়াসের পরবর্তী সময়ে যথেষ্ট উত্তাল হয়ে রয়েছে দীঘার সমুদ্র। উপস্থিত নুলিয়ারা বারবার নিষেধ করেন ওই চারজনকে সমুদ্রে নামতে , কিন্তু সেই নিষেধ অগ্রাহ্য করেই সমুদ্রে নামেন চার জন। তারপরেই প্রবল ঢেউয়ের টানে তলিয়ে যান দুইজন। বাকি দুই বন্ধু দীঘা থানায় খবর দেন।

আরও পড়ুন-“গতবছর আমফানে যে গাছ কাটা হল , সেগুলো কোথায় গেলো?”- মুখ্যসচিবের কাছে রিপোর্ট তলব মুখ্যমন্ত্রীর

দীঘা মোহনা থানার পুলিশ সৈকতে এসে উপস্থিত হয়। বহুক্ষণ খোঁজাখুঁজি করার পর দেহ দুটি উপকূলে ভেসে আসে। সাথে সাথে দেহগুলি উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। মৃত ২ জনের নাম মইদুল নস্কর এবং নূর মহম্মদ মিদ্দা।বাকি দুই বন্ধু বলেছেন যে, ওই চার জনের মধ্যে নূর মহম্মদের একটা জরুরী কাজ উপলক্ষে তাঁরা দীঘায় এসেছিলেন। তারপরেই তাঁরা স্বাভাবিকভাবেই ক্ষণিকের জন্য সমুদ্রে স্নান করতে নামেন। কিন্তু তার পরেই ঘটে যায় এই দূর্ঘটনা। তবে নুলিয়ারা নিষেধ করলেও তারা শোনেননি কেন সেই বিষয়ে কিছু বলেননি ওই দুই জন।