নতুন মুখ্য সচিব আসতেই বদলি করা হলো ৫২ জন আইপিএস অফিসারকে।

নতুন মুখ্য সচিব আসতেই বদলি করা হলো ৫২ জন আইপিএস অফিসারকে।

নিজস্ব প্রতিবেদন: মুখ্যসচিব পদ থেকে আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় অবসর নিয়েছেন। আগামী ৩ বছর মুখ্যমন্ত্রীর মুখ্য উপদেষ্টা হিসেবে তাঁকে নিয়োগ করার কথা ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপর রাজ্যের নতুন মুখ্যসচিব হচ্ছেন হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদী। তাঁর জায়গায় নতুন স্বরাষ্ট্রসচিব পদে বসবেন বি পি গোপালিকা।

এই আবহের মধ্যেই এবার রাজ্যের ৫২ জন আইপিএস অফিসারদের রদবদল করলো রাজ্য সরকার।জানা গিয়েছে ডায়মন্ড হারবারে জে পি নাড্ডার কোন ভয় হামলা করার ঘটনায় প্রবীণ ত্রিপাঠি সহ ৩ জন আইপিএস অফিসার কে দিল্লিতে ডেকে পাঠিয়েছিল কেন্দ্র। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে ওই আইপিএস অফিসারদের দিল্লিতে পাঠায়নি রাজ্য। এর ফলেও যথেষ্ট বিতর্কের সূত্রপাত হয়।

আরও পড়ুন-আজ কলকাতা হাইকোর্টে বৃহত্তর বেঞ্চে হতে চলেছে নারদ মামলার শুনানি

ডিআইজি প্রভিশনিং প্রবীন কুমার ত্রিপাঠী কে মালদার ডিআইজি করে পাঠানো হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।এছাড়াও বেশ কয়েকজন গুরুত্বপূর্ণ আইপিএস অফিসার দের রদবদল করেছে রাজ্য। যেমন কলকাতা পুলিশের কমব্যাট ব্যাটেলিয়নের আইপিএস বিশ্বজিৎ ঘোষকে নিযুক্ত করা হয়েছে ঝাড়গ্রাম এর নতুন পুলিশ সুপারের পোস্টে। মেদিনীপুরের ডিআইজি কুনাল আগারওয়ালকে কম্পালসারি ওয়েটিংয়ে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন-পশ্চিমবঙ্গের প্রতিটি বাড়িতে বিশুদ্ধ পানীয় জল পৌঁছে দিতে ৭ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ করল কেন্দ্রীয় সরকার।

ঝাড়গ্রামের যিনি পুলিশ সুপার ছিলেন সেই ধৃতিমান সরকারকে বাঁকুড়ার পুলিশ সুপার পদে বদলি করা হয়েছে।কঙ্করপ্রসাদ বারুই ছিলেন এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চের ডিসি , তাঁকে বদলি করা হয়েছে ডিআইজি টেলিকমিউনিকেশন। বাঁকুড়ার যিনি পুলিশ সুপার ছিলেন তাঁকে মেদিনীপুরের ডিআইজি পদে বদলি করা হয়েছে। এছাড়াও আরো বেশ কয়েকজন আইপিএসকে গুরুত্বপূর্ণ পদে বদলি করা হয়েছে। জানা গিয়েছে নতুন মুখ্যসচিব এলে এই রদবদল হয়ে থাকে।