উত্তরবঙ্গকে ভেঙে আলাদা রাজ্যের দাবি করায় বিজেপি সাংসদ জন বারলার বিরুদ্ধে থানায় দায়ের হল এফ‌আইআর।

উত্তরবঙ্গকে ভেঙে আলাদা রাজ্যের দাবি করায় বিজেপি সাংসদ জন বারলার বিরুদ্ধে থানায় দায়ের হল এফ‌আইআর।

নিজস্ব প্রতিবেদন: সম্প্রতি রাজ্যের রাজনীতির আঙিনায় উত্তরবঙ্গ কে ঘিরে ব্যাপক বিতর্কের সূত্রপাত হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ক্ষমতায় আসীন হওয়ার পর থেকেই উত্তরবঙ্গের উন্নয়নে বেশ কিছু উল্লেখযোগ্য পরিকল্পনা গ্রহণ করেছিলেন। এরমধ্যে বহুবার তিনি উত্তরবঙ্গ সফরে গিয়েছেন। সম্প্রতি আলিপুরদুয়ারের বিজেপি সাংসদ জন‌বারলা উত্তরবঙ্গ কে আলাদা কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে স্বীকৃতি দেয়ার জোরালো দাবি করেছেন।

তিনি কাশ্মীরের ৩৭০ ধারা বাতিল করার প্রসঙ্গ উল্লেখ করে বলেছেন, “চিরটা কাল দক্ষিণবঙ্গ উত্তরবঙ্গের সাথে প্রতারণা করেছে। তাই অবিলম্বে উত্তরবঙ্গ আলাদা কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করা হোক। উত্তরবঙ্গ উন্নয়নের জন্য কেন্দ্র যা টাকা পাঠাচ্ছে সেই টাকা কোথায় যাচ্ছে তা কেউ জানতে পারছে না। এদিকে অসম থেকে নেপাল সীমানা বরাবর জাতীয় সড়কের পার্শ্ববর্তী এলাকাগুলিতে বাংলাদেশি রোহিঙ্গারা জবরদখল করে রয়েছে।

আরও পড়ুন-“অশান্তি পাকানোর চেষ্টা করছে বিজেপি, তাই পুনর্গণনার চেয়ে আদালতে যাচ্ছে।”- বিজেপি কে আক্রমণ পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের।

মুহুর্তের মধ্যেই তাদের আধার কার্ড, রেশন কার্ড হয়ে যাচ্ছে। এদিকে উত্তরবঙ্গের বহু মানুষ রেশন থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।”এবার আলিপুরদুয়ারের বিজেপি সাংসদ জন বারলার বিরুদ্ধে দিনহাটা থানায় দায়ের হয়েছে এফ‌আইআর। কোচবিহার জেলা যুব তৃনমূলের ভাইস প্রেসিডেন্ট জাকারিয়া হোসেন জন বারলার বিরুদ্ধে এই অভিযোগ দায়ের করেছেন।

আরও পড়ুন-“ওটা হল বঙ্গভঙ্গ দিবস”- পশ্চিমবঙ্গ দিবসের পরিপ্রেক্ষিতে শুভেন্দু অধিকারী কে কটাক্ষ তৃণমূলের।

তিনি অভিযোগ করেছেন যে আলিপুরদুয়ারের বিজেপি জন বারলা রাজ্যে অশান্তি পাকানোর চেষ্টা করছেন।এদিকে জন বারলাকে এবং সেইসাথে বিজেপির বিরুদ্ধে ব্যাপক আক্রমণ শানিয়েছেন তৃণমূল নেতা সুখেন্দু শেখর রায়। তিনি বলেছেন, “বিজেপি যতই ষড়যন্ত্র করুক বাংলাকে ভাগ করার জন্য, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কখনোই বাংলাকে ভাগ হতে দেবেন না।”