আসানসোলে তৃণমূল প্রার্থীর হয়ে প্রচারে এলেন আমিশা প্যাটেল। কি প্রতিক্রিয়া দিলেন বাবুল সুপ্রিয়?

আসানসোলে তৃণমূল প্রার্থীর হয়ে প্রচারে এলেন আমিশা প্যাটেল। কি প্রতিক্রিয়া দিলেন বাবুল সুপ্রিয়?

নিজস্ব প্রতিবেদন: একুশের ভোটে বাংলার মাটিতে নিজেদের কর্তৃত্ব বজায় রাখার মরিয়া প্রচেষ্টায় রত তৃণমূল কংগ্রেস। ‌ ভোটের প্রচারে বাংলার মাটিতে বেশকয়েকজন স্টার ক্যাম্পেনার লাগাতার প্রচার চালাচ্ছেন। তবে তৃণমূল এবং বিজেপি প্রচারে রীতিমতো রেষারেষি শুরু করে দিয়েছে। ‌ বিজেপি স্টার ক্যাম্পেনার মূলত খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। এছাড়াও মিঠুন চক্রবর্তী কেও দেখা যাচ্ছে জেলায় জেলায় জনসভা এবং রোড শো করতে।

তৃণমূল তাদের স্টার ক্যাম্পেনার হিসাবে মূলত অভিনেতা তথা সাংসদ দেবকে প্রচারে নামাচ্ছে। সেই সাথে অভিনেত্রী জয়া বচ্চনকেও দেখা গিয়েছিলো তৃণমূল প্রার্থী অরূপ বিশ্বাসের সমর্থনে রোড শো করতে। এবার তৃণমূলের স্টার ক্যাম্পেনের হিসেবে রাজ্যের মাটিতে পা রেখেছেন বলিউডের কহো না প্যায়ার হে খ্যাত অভিনেত্রী আমিশা প্যাটেল। আসানসোলের তৃণমূল প্রার্থী মলয় ঘটক এর সমর্থনে গতকাল প্রচার করতে এসেছিলেন আমিশা।

আরও পড়ুন-“করোনা মোকাবিলায় উত্তীর্ণ সহ বেশ কয়েকটি জায়গায় সেফ হোম হচ্ছে।”- বললেন ফিরহাদ হাকিম।

ওই প্রচার সভায় এসে তিনি বলেছেন, “মুখ্যমন্ত্রীর আহ্বানে আমি এখানে এসেছি। আমি উনার মেয়ের মত। আমি অনেককেই চিনি কিন্তু সবার কাছে যেতে পারিনা। আমি এখানে এসেছি শুধু মাত্র উনার কাজ দেখে। ‌ উনি এত ভালো কাজ করেছেন যে বারবার তাকে মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচন করেছে বাংলার জনগণ। উনি এই ১০ বছরে রাজ্যের জন্য অনেক উন্নয়ন করেছেন। উনি না শুয়ে, না খেয়ে আপনাদের জন্য কাজ করে চলেছেন।

উনি আপনাদের জন্য ইউনিভার্সিটি বানিয়েছেন, সুপার স্পেশালিটি হসপিটাল বানিয়েছেন। করোনার সময় আপনাদের পাশে থেকেছেন।”এদিকে বিজেপির কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তথা প্রার্থী বাবুল সুপ্রিয় বলেছেন, “আমিশা প্যাটেল এখানে এসেছেন কোনো অসুবিধে নেই, কিন্তু একটা জিনিস ভেবে দেখুন, আমি এখানকার সাংসদ আমি নিজেই ঘুরে ঘুরে ক্যাম্পেইন করছি। মিঠুনদা বাংলার ছেলে তিনি বাঙালীদের হয়ে কথা বলবেন এটা স্বাভাবিক, কিন্তু আমিশা প্যাটেলের সাথে বাংলার কোন আত্মিক যোগ নেই। তিনি বাংলার মানুষের জন্য কথা বলছেন এটা অস্বাভাবিক। ‌উনাকে একটা পেমেন্ট দেওয়া হয়েছে উনি এসে ক্যাম্পেন করছেন।”